Beautifull girl runner is having break, drinking water against c
Health & Wellness

হৃদরোগীদের জন্য পানি পানের উপকারিতা 

কার্ডিওলজি ডেস্ক

হৃদরোগ বিশ্বব্যাপী মৃত্যুর একটি প্রধান কারণ। হৃদরোগের ঝুঁকি কমাতে এবং হৃদস্পন্দন সুস্থ রাখতে জীবনযাপনে কিছু গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন নিয়ে আসা জরুরি। এর মধ্যে অন্যতম হল পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করা।

এ সম্পর্কে কথা হয় কার্ডিওলজিস্ট ডা. নীলা চক্রবর্তীর সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘হৃদরোগীদের জন্য পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। পানি হৃদস্পন্দনকে সুস্থ রাখতে এবং হৃদরোগের ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে। সাধারণত হৃদরোগীদের দিনে ৮ থেকে ১০ গ্লাস পানি পান করার পরামর্শ দেই। তবে, পানি পানে ব্যক্তিগত চাহিদাও গুরুত্ব রাখে।’

হৃদরোগীদের জন্য পানি পানের উপকারিতা:

Refreshing after workout. Beautiful young woman in sports clothing drinking water and keeping eyes closed while standing in health club

হার্টের উপর চাপ কমায়

পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি রক্তের আয়তন বৃদ্ধি করে। পাশাপাশি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। এর ফলে হৃদপিণ্ডের উপর চাপ কমে এবং হৃদরোগের ঝুঁকি কমে।

রক্ত চলাচলে সাহায্য করে

পানি রক্ত ​​পাতলা করে এবং রক্তনালীগুলিতে প্রবাহিত হতে সহায়তা করে। এটি অক্সিজেন এবং পুষ্টি উপাদানগুলিকে হৃদপিণ্ডে আরও দক্ষতার সাথে পৌঁছে দিতে সাহায্য করে।

শরীরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে

পানি শরীরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। হৃদরোগীদের জন্য যা গুরুত্বপূর্ণ কারণ তাপমাত্রা বৃদ্ধি হৃদস্পন্দনের উপর চাপ সৃষ্টি করতে পারে।

শরীরের লবণ নিয়ন্ত্রণ করে

পানি শরীরের অতিরিক্ত লবণ বের করে দিতে সাহায্য করে। বেশি লবণ গ্রহণ রক্তচাপ বৃদ্ধির ঝুঁকি বাড়ায়, যা হৃদরোগের জন্য একটি প্রধান ঝুঁকির কারণ।

ওজন নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে

পানি পেট ভরা রাখতে সাহায্য করে এবং ক্ষুধা কমাতে পারে। এর ফলে অতিরিক্ত খাওয়া এবং ওজন বৃদ্ধি রোধে সাহায্য হয়, অন্যদিকে ওজন বাড়লে হৃদরোগের ঝুঁকি বাড়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *